all public university admission 2021

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি

Admission

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২০-২০২১

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা ২০২০-২০২১: প্রতি বছর এইচ এস সি পরীক্ষার পর বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির বিজ্ঞপ্তি গুলো প্রকাশ হতে থাকে। এবছর ২০২০-২০২১ সেসনের ভর্তি নিয়ে বেশ জটিলতা দেখা দেয়। এক, এইচএসসি পরীক্ষা না হওয়া, অন্যদিকে অটো পাসের ব্যবস্থা, এবং করোনার প্রভাবে স্কুল, কলেজ, ভার্সিটি বন্ধ থাকা।  সব মিলিয়ে এক কঠিন পরিস্থিতিতে কিভাবে সেসন জট এড়ানো যায় এবং ছাত্র/ছাত্রীদেরকে ভর্তি পরীক্ষার কারণে বিভিন্ন ভার্সিটিতে যাতায়াত কমানো যায় সেই লক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন সোচ্চার হয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ৪৬টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়কে গুচ্ছ পদ্ধতিতে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা-২০২০-২০২১ গ্রহণের আহব্বান জানান।

UGC board meeting

এরই প্রেক্ষিতে প্রায় ৩৪ পাবলিক ভার্সিটি গুচ্ছ প্রক্রিয়া বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণে একমত হয়েছেন। তাই, এবছর ৩টি গ্রুপে গুচ্ছ পক্রিয়ায় ভার্সিটি ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে। তবে, প্রধান কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় গুচ্ছ পক্রিয়ায় “ভার্সিটি ভর্তি পরীক্ষা” গ্রহণে অনিচ্ছা প্রকাশ করে এবং একক পরীক্ষা গ্রহণে অটল থাকেন । এ পর্যন্ত যতটুকু জানা গেছে দেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় সমূহে ৩টি গুচ্ছে মোট ৫টি ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে । ৩টি গুচ্ছ বিদ্যালয় সমূহ, ভর্তি পরীক্ষার পদ্ধতি, পরীক্ষার মান বন্টন ও পদ্ধতি সহ সকল তথ্য এই আর্টিকেলে সহজ করে তুলে ধরা হবে। আরো থাকবে-পরীক্ষার তারিখ ও সময়, সিট প্ল্যান, ভর্তির বিজ্ঞপ্তি সমূহ। বিজ্ঞপ্তিটি ইংরেজীতে দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ সমূহ

১) ২০টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১ টি গুচ্ছ

২) ০৬ টি কৃষি প্রধান বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ

৩) তিনটি প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ । 

 

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছের ভর্তি পরিক্ষা

১) ২০টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ৩ টি গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা

২) ০৬টি কৃষি প্রধান বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা

৩) তিনটি প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা ।

মোট ৩টি গুচ্ছে ৫টি ভর্তি পরীক্ষা হবে।

 

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ পরীক্ষার পদ্ধতি

এমসিকিউ অর্থাৎ উত্তর বেছে নেয়ার পদ্ধতিতে এই ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

 

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ পরীক্ষার মান বন্টন

প্রতি বিষয়ে মোট নম্বর থাকবে = ১০০ নম্বর ।

 

২০ বিশ্ববিদ্যালয় গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার যোগ্যতা

গুচ্ছ পদ্ধতিতে আবেদন করতে হলে এসএসসি এবং এইচ এসসি এই দুই পরীক্ষার প্রত্যেকটিতে সিজিপিএ স্কোর কমপক্ষে ৩.৫  থাকতে হবে। যাদের একটি পরীক্ষায় এর চেয়ে কম স্কোর থাকবে, তারা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষাতে অংশ নিতে পারবে না ।

বিজ্ঞানঃ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীদের এসএসসি ও এইচএসসি মিলে ৮.00

ব্যবসায় শিক্ষাঃ ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের জন্য ৭.৫ এবং

মানবিকঃ মানবিক বিভাগের জন্য ৭.০০ থাকতে হবে।

সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেদন ও ভর্তি পরীক্ষার তারিখ

কৃষি গুচ্ছের ভর্তি পরীক্ষাঃ

গুচ্ছভুক্ত সাতটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা আগামী ৩১ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে।

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা এসএসসি ও এইচএসসিতে প্রাপ্ত জিপিএ (চতুর্থ বিষয় ছাড়া) জিপিএ-৮ রাখা হয়েছে। তবে উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে জিপিএ ৩.৫ থাকতে হবে। পরীক্ষার সময় বেলা ১১ থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত এমসিকিউ পদ্ধতিতে লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

আবেদন শুরু:

আবেদন শেষ:

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ

ভর্তি পরীক্ষার তারিখঃ

২০ বিশ্ববিদ্যালয় গুচ্ছের ভর্তির পরীক্ষাঃ

১৯ জুন থেকে পরীক্ষা শুরুর প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে। ১৯ জুন, ২৬ জুন, ৩ জুলাই তিনটি ইউনিটের পরীক্ষা নেয়ার প্রস্তাব করা হয়েছে।

আবেদন শুরু: ০১ এপ্রিল দুপুর ১২টায় আবেদন শুরু হয়েছে।

আবেদন শেষ: ১৫ এপ্রিল রাত ১১:৫৯ মিনিটে

প্রাথমিক আবেদনের ফলাফল: ওয়েব সাইটে জানানো হবে।

 

প্রকৌশল গুচ্ছের ভর্তি পরীক্ষা:

আবেদন শুরু:

আবেদন শেষ:

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ

ভর্তি পরীক্ষার তারিখঃ 

১২ জুন প্রকৌশল গুচ্ছের তিন বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট, রুয়েট ও কুয়েট) ভর্তি পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। 

 

বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা:

আবেদন শুরু:

আবেদন শেষ

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ

ভর্তি পরীক্ষার তারিখঃ

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা ২০২০-২১

আবেদন শুরু: আবেদন শেষ হয়েছে।

আবেদন শেষ: আবেদনের মেয়াদ শেষ।

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ ০১ মে থেকে প্রত্যেক ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ৩০ মিনিট পূর্ব পর্যন্ত প্রবেশ পত্র ডাউন লোড করা যাবে।

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার তারিখ সমূহ: 

ক ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা

খ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে

গ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা হবে

ঘ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা

চ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা হবে

 

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষাঃ

আবেদন শুরু: প্রকাশিত হয়নি।

আবেদন শেষ

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ

ভর্তি পরীক্ষার তারিখঃ

আগামী ৬ জুন থেকে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা শুরুর প্রস্তাব করা হয়েছে। চলবে ২০ জুন পর্যন্ত। জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা জানান, বুধবার উপাচার্য পরিষদের সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। আগামী ৬ জুন থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হবে। ২০ জুনের মধ্যে সব ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা শেষ হবে। এছাড়া ভর্তি পরীক্ষা শুরুর একমাস আগে অর্থ্যাৎ মে মাস থেকে ভর্তি পরীক্ষার আবেদন কার্যক্রম শুরু হবে।

 

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির তারিখ:

প্রাথমিক আবেদন শুরু-৭ মার্চ ২০২১

প্রাথমিক আবেদন শেষ-১৮ মার্চ ২০২১

চুড়ান্ত আবেদন শুরু ২৩ মার্চ ২০২১

প্রবেশ পত্র ডাউনলোডের তারিখ:

২৭/০৫/২০২১ (দুপুর ১২:০০টা) হতে ০২/০৬/২০২১ তারিখ (সন্ধ্যা ৬:০০টা) –এর মধ্যে Admit Card অবশ্যই ডাউনলোড করতে হবে। নির্দিষ্ট সময়ের পর Admit Card ডাউনলোড করা যাবে না।

ভর্তি পরীক্ষার তারিখ: ১৪ জুন ২০২১ থেকে ১৬ জুন ২০২১

 

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির তারিখ:

ভর্তির আবেদন শুরু: ৫ এপ্রিল ২০২১ সকাল ১১টা থেকে

ভর্তির আবেদন শেষ: ৩০ এপ্রিল ২০২১ রাত ১২ টা পর্যন্ত আবেদন করা যাবে।

আবেদন ফি জমা দেয়া যাবে ২ মে রাত ১২টা পর্যন্ত

আবেদন ফি-550 টাকা

ভর্তির পরীক্ষা শুরু হবে ২২ জুন থেকে তিন ধাপে েএ পরীক্ষা শেষ হবে ৮ জুলাই।

 

বুটেক্সের ভর্তি পরীক্ষার তারিখ: 

বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুটেক্স) ভর্তি পরীক্ষা আগামী ১৮ জুন নেয়ার প্রস্তাব করা হয়েছে। 

প্রাথমিক আবেদন শুরু: ৪ এপ্রিল ২০২১ ইং

প্রাথমিক আবেদন শেষ: ৮ মে ২০২১ ইং

লিখিত পরীক্ষার আবেদন শুরু: ২৪ মে ২০২১ ইং থেকে

লিখিত পরীক্ষার আবেদন শেষ: ০৬ জুন, ২০২১ ইং

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখঃ ২৪ মে ২০২১ ইং থেকে ০৬ জুন, ২০২১ ইং

ভর্তি পরীক্ষার তারিখঃ ১০ জুন ২০২১ ইং

 

বিইউপি ভর্তি পরীক্ষার তারিখ: 

আগামী ২৬ ও ২৭ তারিখে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালস (বিইউপি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত । ঢাকা, চট্টগ্রাম, বগুড়া ও খুলনায় একযোগে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

 

 

নিজের পছন্দমত বিশ্ববিদ্যালয় চোজ করা যাবে কি?

গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা বিষয়ক কমিটির পক্ষ থেকে জানানো হয়, পছন্দের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হতে হলে প্রথমেই গুচ্ছ পরীক্ষায় অংশ নিতে হবে। এই পদ্ধতিতে শিক্ষার্থীদের 0-100 এর মধ্যে একটি নম্বর দেয়া হবে। এই নম্বর পাওয়ার পর, প্রত্যেকটি বিশ্ববিদ্যালয় আলাদাভাবে নিজস্ব নিয়ম, বৈশিষ্ট্য এবং শর্ত উল্লেখ করে ভর্তির বিজ্ঞপ্তি দেবে। শিক্ষার্থীকে দেখতে হবে যে ভর্তি বিজ্ঞপ্তির শর্ত অনুযায়ী তিনি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য যোগ্য, তা দেখে তাকে সংশ্লিষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে আবেদন করতে হবে। গুচ্ছ পরীক্ষার নম্বর েএবং এসএসসি ও এইচএসসির স্কোর মিলে যারা এগিয়ে থাকবেন, ভর্তির ক্ষেত্রে তারাই অগ্রাধিকার পাবেন। একই বিভাগে বেশি আবেদন হলে একটি মেধা তালিকা করা হবে। তবে পুনরায় কোন পরীক্ষা নেওয়া হবে না । মেধা তালিকায় যারা শুরুর দিকে থাকবেন, তারাই সংশ্লিষ্ট ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট বিষয়ে পড়ার সুযোগ পাবেন ।

কোন বিষয়ে পড়তে গেলে নির্দিষ্ট বিষয়ে সর্বনিম্ন কত নম্বর পেতে হবে, তা অনেক ক্ষেত্রে উল্লেখ করে দেয়া হয়। সেক্ষেত্রে কোন শিক্ষার্থীর মোট নম্বর বেশি থাকলেও যদি ওই নির্দিষ্ট বিষয়ে নির্ধারিত নম্বর না থাকে, তাহলে তিনি ওই বিষয়ে পড়তে পারবেন না ।

 

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা-২০২০-২০২১

(অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয় সমূহ)

দেশের ২০টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এসব বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে সশরীরে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। উচ্চ মাধ্যমিক পাঠ্যসূচির উপর ভিত্তি করে ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র প্রণয়ন করা হবে। এই গুচ্ছের অধীনে মানবিক, বাণিজ্য ও বিজ্ঞান এ তিনটি বিষয়বস্তুর ওপর পরীক্ষা নেয়া হবে।

গুচ্ছ প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয় গুলো হলো:

ইউজিসি এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানায় দেশের ১৯টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এই গুচ্ছের অধীনে মানবিক, বাণিজ্য ও বিজ্ঞান এ তিনটি বিষয়বস্তুর ওপর পরীক্ষা নেওয়া হবে। এসব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় সমূহে সরাসরি ভর্তি পরীক্ষা হবে। উচ্চ মাধ্যমিককের পাঠ্যসূচির ওপর ভিত্তি করে প্রশ্নপত্র প্রণয়ন করা হবে। সাধারণ ও বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়য় গুচ্ছের যুগ্ম আহ্বায়ক ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মীজানুর রহমান বলেন, “সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় একই বিষয় রয়েছে। তাই দুটি একসাথে পরীক্ষা নেয়া হচ্ছে।

  1. ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়
  2. শাহাজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  3. খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়
  4. হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  5. মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  6. নোয়াখালি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  7. জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়
  8. কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়
  9. জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়
  10. যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  11. বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়
  12. পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  13. বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  14. বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়
  15. রাঙ্গামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  16. রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়
  17. বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি
  18. শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়
  19. মঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  20. পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

তিনটি প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ প্রক্রিয়ায় বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে।

১। চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

২। খুলনা প্রকৌশল প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

৩। রাজশাহী প্রকৌশল প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

 

পাবলিক কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা ২০২০-২০২১

৬টি কৃষি বিদ্যালয় নিয়ে গত বছর ১টি গুচ্ছ পক্রিয়ায় কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা গৃহিত হয়েছে। ২০১৯-২০২০ ইং সেসন থেকে এই ৭টি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় একটি গুচ্ছ প্রক্রিয়ায় ভর্তি পরীক্ষা নিয়েছে এবং এবছরও বাংলাদেশ পাবলিক কৃষি বিদ্যালেয়ের ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে। 

এ বছরও একই পদ্ধতিতে পাবলিক কৃষি বিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা ২০২১ অনুষ্ঠিত হবে। পাবিলিক কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় গ্রুপে গুচ্ছ পক্রিয়ায় অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলো হলো: 

all agricultural university Admission

৬টি কৃষি প্রধান বিশ্ববিদ্যালয় মিলে ১টি গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা ২০২০-২০২১:

১।  শের-ই-বাংলা এগ্রিকালচার ইউনিভার্সিটি, ঢাকা

২। বাংলাদেশ এগ্রিকালচার ইউনিভার্সিটি, ময়মনসিংহ

৩। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এগ্রিকালচার ইউনিভার্সি, গাজীপুর

৪। সিলেট এগ্রিকালচার ইউনিভার্সিটি

৫। খুলনা এগ্রিকালচার ইউনিভার্সিটি

৬। চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি এন্ড এ্যানিমেল সাইন্সেস ইউনিভার্সিটি

 

গুচ্ছের বাহিরে একক ভাবে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরিক্ষা-২০২০-২০২১

প্রধান কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় এককভাবে ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণ করবে। তাদের নিজস্ব পদ্ধতির বাইরে গুচ্ছ পক্রিয়ায় ‘বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা’ গ্রহণে বিভিন্ন সমস্যার কথা জানিয়েছেন, বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তাই তারা গুচ্ছ পদ্ধতিতে ’ইউনিভার্সিটি এ্ডমিশন টেষ্ট’ গ্রহণে অনিচ্ছা প্রকাশ করেছেন । এই বিশ্ববিদ্যালয় গুলো পূর্বের ন্যায় পৃথক পৃথক ভর্তি নোটিশ প্রকাশ করবে এবং ”বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা-2020-2021” গ্রহণ করবে। এই বিশ্ববিদ্যালয় গুলো হলো :

indivisual admission test

  1. ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়,
  2. জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়
  3. চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
  4. রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়
  5. বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট)

Leave a Reply